June 18, 2024

নন-ক্যাডারের ফল বাতিল না করলে হাইকোর্টে যাবেন চাকরিপ্রার্থীরা

৪৩তম বিসিএসের নন-ক্যাডারের প্রকাশিত চূড়ান্ত সুপারিশের তালিকা বাতিল করে পুনরায় ফল প্রকাশের দাবি জানিয়েছেন চাকরিপ্রার্থীরা। তারা আগের বিসিএসগুলোর মতো লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কিন্তু ক্যাডার না হওয়া প্রার্থীদের পূর্ণাঙ্গ নন-ক্যাডার তালিকা প্রকাশ এবং ৪৪তম বিসিএসের চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণার আগ পর্যন্ত সময় বাড়িয়ে সর্বোচ্চ সংখ্যক শূন্যপদে নন-ক্যাডারদের সুপারিশ অব্যাহত রাখার দাবি জানিয়েছেন।

এ দাবি মেনে ফল বাতিল না করা হলে হাইকোর্টে রিট আবেদনসহ আইনি লড়াইয়ে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তারা। বৃহস্পতিবার (১৮ জানুয়ারি) বিকেলে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) নসরুল হামিদ মিলনায়তনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ হুঁশিয়ারি দেন তারা।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনান নন-ক্যাডার প্রার্থী হালিমা আক্তার। এ সময় প্রার্থীদের আইন উপদেষ্টা ব্যারিস্টার মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির পল্লবও উপস্থিত ছিলেন। তিনি বলেন, দাবি আদায়ে আমরা সরকারি কর্ম কমিশনের (পিএসসি) চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইনসহ তিনজনকে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছি। আশা করছি, তিন কার্যদিবসের মধ্যে দাবি পূরণে সরকার উদ্যোগী হবে। এর ব্যত্যয় ঘটলে উচ্চ আদালতে ন্যায়বিচার চেয়ে রিট আবেদন করা হবে।

লিখিত বক্তব্যে হালিমা আক্তার জানান, ৪১, ৪৩ ও ৪৪তম বিসিএসের অধিকাংশ প্রার্থী করোনার কারণে ক্ষতিগ্রস্ত। এ সময়ে নন-ক্যাডার নিয়োগ না হওয়া ও অন্যান্য নিয়োগ স্থগিত থাকায় অনেকেরই চাকরিতে আবেদনের বয়স শেষ হয়ে গেছে। এমন পরিস্থিতিতে পিএসসির যতটুকু আন্তরিক হওয়া দরকার ছিল, তেমনটি তারা করেনি। ফলে পিএসসির বিরুদ্ধে আন্দোলন এখন নিয়মিত ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এটি বর্তমান সরকার ও দেশের জন্য নেতিবাচক।

তিনি আরও জানান, পিএসসির নেতিবাচক সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে চলমান আন্দোলনের অংশ হিসেবে প্রার্থীদের পক্ষে মারুফ হোসেন, হাসান সরদার, ফারুকুল ইসলামসহ ৫০০ জনের পক্ষে পিএসসি চেয়ারম্যানসহ পরীক্ষা সংশ্লিষ্ট তিনজনকে ডাকযোগে আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন ব্যারিস্টার মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির পল্লব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *